গতানুগতিক ম্যানুয়াল পদ্ধতিতে স’রকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের বেতন-ভাতা দেওয়ার কারণে দীর্ঘদিন ধরে ভোগান্তি হচ্ছে শিক্ষকদের। শিগগিরই এই স’মস্যার স্থায়ী সমাধান করা হবে।

শিক্ষকরা ইএফটি’র (ইলেক্ট্রনিক ফান্ড ট্রান্সফার) মাধ্যমে জিটুপি পদ্ধতিতে সরাসরি ব্যাংক অ্যাকাউন্টে বেতন-ভাতা পাবেন বলে জানিয়েছেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা ম’ন্ত্রণালয়ের সিনিয়র স’চিব মো. আকরাম-আল-হোসেন।

প্রস’ঙ্গত, স’রকারি চাকরিজীবীদের বেতন-ভাতা দেওয়ার কথা রয়েছে কেন্দ্রীয়ভাবে ইএফটির মাধ্যমে। তবে কিছু ক্ষেত্রে এই ইএফটির মাধ্যমে ফান্ড ট্রান্সফারের ব্যবস্থা এখনও হয়নি।

তবে মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শ্রেণির শিক্ষার্থীদের বৃত্তি কার্যক্রম চালু হয়েছে ইএফটির মাধ্যমে। বেস’রকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে শিক্ষকদের বেতন-ভাতাও ইএফটির মাধ্যমে অ্যাকাউন্টে পাঠানোর ব্যবস্থা করা হবে বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে।

আরও পড়ুন= চীনকে ভাতে মা’রতে এবার নতুন পদক্ষেপ কেন্দ্রের, বন্ধ করা হল এসির আম’দানি

লাদাখ সীমান্তকে কেন্দ্র করে ভারত-চীনের মধ্যে উ’ত্তেজনা চ’রমে উঠেছে। একাধিকবার বৈঠক করা সত্বেও কোনো কাজ হয়নি। তবে যু’দ্ধের সবরকম ভাবে প্রস্তুতির পাশেই ভারত চীনকে আর্থিক দিক থেকেও বেজিংকে কোণঠাসা করতে একাধিক পদক্ষেপ করছে কেন্দ্রীয় স’রকার। চীনের অ্যাপ টিকটক, পাবজি, শেয়ারইট সহ একাধিক অ্যাপ নি’ষিদ্ধ ঘোষণা করেছিল কেন্দ্র। এবার চীনের তৈরী রেফ্রিজারেন্টস-সহ এয়ার কন্ডিশনের আম’দানি নি’ষিদ্ধ করল মোদী স’রকার।

ডায়রেক্টর জেনারেল অফ ট্রেড বিজ্ঞপ্তি জারি করে জানিয়েছে, রেফ্রিজারেন্টস-সহ এসির আম’দানি নি’ষেধের তালিকাতে এখন সংশোধিত করা হচ্ছে। ভারতে আম’দানিকৃত এই রেফ্রিজারেটর ও এয়ার কন্ডিশনের এক- তৃতীয়াংশই আসে বিদেশ থেকে। আর সবথেকে বেশি আসে চীন ও থাইল্যান্ড থেকে। ফলে এই আম’দানি বন্ধ করলে আর্থিক দিক জো’র ধাক্কা খাবে বেজিং, তা বলাই বাহুল্য।

এর আগেও গত জুলাই মাসে টেলিভিশন সেট আম’দানির উপরে নি’য়ন্ত্রণ করে কেন্দ্র। বাইরে থেকে আম’দানিকৃত জিনিসের উপর নির্ভরতা কমাতে চাইছে কেন্দ্র। আর তার পরিবর্তে ভারতে এইসব জিনিস উৎপাদনের দিকে চেষ্টা করছে ভারত। মূ’লত আত্মনির্ভর ভারতের দিকেই লক্ষ্য রাখছে কেন্দ্র। সেই পথ এখন অনুসরণ করা হচ্ছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here